• আজ মঙ্গলবার, ১২ শ্রাবণ, ১৪২৮ ৷ ২৭ জুলাই, ২০২১ ৷

শাহজাদপুরে ভিজিএফ’র চাল বিতরণের ২য় দিনেও ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ

news4324
❏ শনিবার, জুলাই ১৭, ২০২১ দেশের খবর, রাজশাহী

রাজিব আহমেদ রাসেল, শাহজাদপুর (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি: সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলা প্রশাসনের কঠোর অবস্থানের মধ্যেও ঈদ-উল-আযহা উপলক্ষ্যে দুঃস্থ্য ও দরিদ্রদের মাঝে ভিজিএফ’র চাল বিতরণের ২য় দিনেও ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে।

জানা যায়, শুক্রবার (১৬ জুলাই) উপজেলার রুপবাটি ইউনিয়ন, নরিনা ইউনিয়ন, খুকনী ইউনিয়ন ও সোনাতনী ইউনিয়নে দুস্থ্য ও দরিদ্রদের মাঝে ভিজিএফ এর চাল বিতরণ করা হয়।

সকাল আটটায় শাহজাদপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শাহ মোঃ শামসুজ্জোহা রুপবাটি ইউনিয়নে উপস্থিত থেকে দিনের ভিজিএফ এর চাল বিতরণের উদ্বোধন করেন।

এই চারটি ইউনিয়নেই ভিজিএফ বিতরণে ওজনে কম দেওয়া, শ্লীপ বিক্রি করা ও অনেক ব্যক্তি একাধিক শ্লীপের মাধ্যমে চাল উত্তোলনসহ বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগ ওঠে।

পরে পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি শাহান শাহ ও সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান সুমনের নেতৃত্বে নেতাকর্মীরা রুপবাটি ইউনিয়ন থেকে একজনের কাছ থেকে ১৯টি শ্লীপ উদ্ধার করেন। এই ঘটনায় একজন সংরক্ষিত নারী ইউপি সদস্যকে শোকজ করা হয়।

উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক আশিকুল হক দিনার নরিনা ইউনিয়ন থেকে ভিজিএফ’র চাল কালোবাজারের সাথে জড়িত একজনকে আটক করে পুলিশের হাতে তুলে দেন।

খুকনী ইউনিয়নে একই ব্যক্তি কয়েক দফায় চাল উত্তোলন করে মজুদ করার সময় উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রাসেল শেখ একজনকে আটক করেন। সেখানেও ভিজিএফ’র চাল ওজনে কম দেওয়ার মতো ঘটনা ঘটে।

এদিকে যমুনা নদীর চরে অবস্থিত দুর্গম সোনাতনী ইউনিয়নে অনিয়মের মাত্রা ছিল প্রকাশ্যে। অনেকে একাধিক কার্ডের মাধ্যমে ভিজিএফ’র চাল উত্তোলন করেন। শিশুদের মজুরির ভিত্তিতেও চাল উত্তোলনের ঘটনা ঘটে।

অত্র ইউনিয়নের কিছু ইউপি সদস্যরা অর্থের বিনিময়ে শ্রমিক ভাড়া করে চাল উত্তোলন করে কালো বাজারে বিক্রি করেন বলেও অভিযোগ পাওয়া যায়।

তবে সোনাতনী ইউনিয়নের ট্যাগ অফিসার (উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রণ কর্মকর্তা) বলেন, এখানে কোন অনিয়ম হচ্ছে না। বরং অন্য সকল ইউনিয়নের চেয়ে এখানে স্বচ্ছভাবে ভিজিএফ’র চাল বিতরণ করা হচ্ছে।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন