• আজ শুক্রবার, ১৫ শ্রাবণ, ১৪২৮ ৷ ৩০ জুলাই, ২০২১ ৷

‘বন্দুকযুদ্ধে’ শেষ হলো কক্সবাজারের ভয়ংকর কিলার আশুআলীর অধ্যায়


❏ শনিবার, জুলাই ১৭, ২০২১ চট্টগ্রাম, দেশের খবর
শাহীন মাহমুদ রাসেল, কক্সবাজার প্রতিনিধি:
কক্সবাজার শহরের ভয়ংকর কিলার ও সন্ত্রাসী বাহিনীর প্রধান আশরাফ আলী ওরফে আশু আলী (২৫) র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে দেশি বন্দুক ও গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।
শনিবার (১৭ জুলাই) ভোরে কক্সবাজার শহরের ৬ নং ওয়ার্ডের সাহিত্যিকা পল্লী বড়বিল মাঠে লাশটি দেখতে পায় স্থানীয়রা। সে বিজিবি ক্যাম্প ফরেস্ট অফিস পাড়ার জাফর আলমের ছেলে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে কক্সবাজার র‍্যাব-১৫ এর উপ-অধিনায়ক তানভীর হাসান।

তিনি জানান, আশু আলী সম্প্রতি শহরের রুমালিয়ারছড়ায় ডাবল মার্ডারেরও প্রধান আসামি। ভোরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বড়বিল এলাকায় অভিযানে যায় র‍্যাব।

এ সময় র‌্যাবের অবস্থান টের পেয়ে গুলি ছুড়ে সন্ত্রাসীরা। আত্মরক্ষার্থে র‍্যাবও পাল্টা গুলি চালায়। পরে ঘটনাস্থল তল্লাশি করে আশু আলীর মরদেহ পাওয়া যায়। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে দুটি দেশীয় তৈরি অস্ত্র ও ছয় রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার করা হয়েছে।

জানা গেছে, শহরের সাহিত্যিকা পল্লী ও সমিতি বাজারের মাঝামাঝি আশু আলী বাহিনীর অভয়ারণ্য। তার বাহিনীর প্রধান আমির খান ২০১৯ সালে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মারা যায়।
এদিকে, কক্সবাজার শহরের ক্রাইমজোন হিসেবে পরিচিত দক্ষিণ রুমালিয়ারছড়া এলাকা, সমিতি বাজার, সিকদার বাজার ও জেল কারাগারের পেছনের এলাকা আশু আলী বাহিনীর রাজত্ব। এসব এলাকায় নিয়মিত হত্যা, ছিনতাই, অপহরণ, ডাকাতি, জমি দখল, চাঁদাবাজিসহ সব ধরনের অপরাধ কর্মকান্ড চলে আসছে। এসব প্রতিরোধ করতে সবার দাবির পরিপ্রেক্ষিতে গত দেড় বছর আগে দক্ষিণ রুমালিয়ারছড়া এলাকায় করা হয় কক্সবাজার শহর পুলিশ-ফাঁড়ি।
পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, আশরাফ আলী ওরফে আশু আলীর বিরুদ্ধে হত্যা, ছিনতাই, অস্ত্র, ডাকাতি প্রস্তুতিসহ প্রায় ১২টি মামলা রয়েছে এবং সাদ্দাম হোসেনের বিরুদ্ধে হত্যা, অস্ত্র, চাঁদাবাজি, ডাকাতির প্রস্তুতিসহ প্রায় ৯টি মামলা রয়েছে। তবে গত দুই মাস আগে অস্ত্রসহ সাদ্দামকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন