শিল্প কারখানা খোলা, জীবনের ঝুঁকি নিয়ে কর্মস্থলমুখী মানুষ

track 5
❏ শনিবার, জুলাই ৩১, ২০২১ ঢাকা

মো. সানোয়ার হোসেন, মির্জাপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি- আগামীকাল শিল্প কারখানা খুলে দেয়ার ঘোষণায় কর্মস্থলমুখী মানুষের ঢল নেমেছে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে। দূরপাল্লার বাস তেমনটা না থাকায় কর্মস্থলে ভোগান্তি নিয়ে ফিরতে দেখা গেছে কর্মমুখী মানুষদের।

শনিবার (৩১ জুলাই) সরেজমিনে টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলার ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের গোড়াই ও চরপাড়া এলাকায় গিয়ে কর্মস্থলমুখী মানুষের দুর্ভোগের চিত্র দেখা গেছে। দুর্ভোগ যেনো চারিদিক থেকে ধরেছে মমিনকে। তিনি রাজধানীর একটি পোশাক কারখানায় চাকরি করেন। লকডাউনে প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় ঈদের ছুটি শেষে বাড়ি থেকে ফেরা হয়নি তার।

তবে পোশাক কারখানা খুলে দেয়ার ঘোষণার পর সে সিরাজগঞ্জ নিজের বাড়ি থেকে রাতে রওনা হয় কর্মস্থলের উদ্দেশে। রাত পেরিয়ে অর্ধদিনে মোট ৪টি গাড়ি পরিবর্তন করে তিনি মির্জাপুর পৌছেছেন। সড়কে বাস গাড়ি নেই। তাই রিক্সা, ভ্যান ও সবশেষ ট্রাকে উঠেছি। সময় মতো গন্তব্যে পৌছাতে পারবো কি না দুঃশ্চিন্তায় আছি।

একই অভিজ্ঞতার কথা জানান, গাজীপুরের একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করা শামীম ওয়াসিম। বলেন, লকডাউনে শিল্পকারখানা খোলা হবে এটা আমাদের জন্যও ভালো, কিন্তু আমরা আমাদের গন্তব্যে কিভাবে পৌছাবো এটা সংশ্লিষ্টদের ভাবা উচিত। পরিবার নিয়ে খুব কষ্ট করে গাজীপুরে যাওয়ার চেষ্টা করছি। ১ বছরের বাচ্চা সন্তান নিয়ে খুবই সমস্যার মধ্যে পড়েছি। গাড়ি সংকটে আমার মতো আরো হাজারো মানুষ ভোগান্তিতে আছেন।

এদিকে মহাসড়কের উভয় পাশে যাত্রীর পাশাপাশি পণ্য পরিবহনকাজে নিয়োজিত যানবাহনসহ মাইক্রোবাস, মোটরসাইকেল, সিএনজি, প্রাইভেটকার, মিনি কাভার্ডভ্যান ইত্যাদি যানবাহনের চাপ লক্ষ্য করা গেছে। পাশাপাশি অল্প সংখ্যক বাস গাড়ির দেখাও মিলেছে সড়কে। বাস গাড়ি না পেয়ে বিকল্প হিসেবে ট্রাক গাড়িসহ অন্যান্য বাহন ব্যবহার করে যাত্রীরা ভোগান্তি ও জীবনের ঝুঁকি কাঁধে নিয়েই নিজেদের কর্মস্থলে যাচ্ছেন।

এ ব্যাপারে মির্জাপুর চরপাড়া এলাকায় দায়িত্বে থাকা টাঙ্গাইল সদর ট্রাফিক বিভাগের পুলিশ সার্জেন্ট মো. রোবায়েত আহম্মেদ জানান, আজ থেকে মহাসড়কে যাত্রী ও যানবাহনের চাপ বেড়েছে। উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ থেকে কঠোর অবস্থানে যাওয়ার মতো তেমন কোনো নির্দেশনা না থাকায় আমরা মানবিক দিকটাকে বেশি প্রাধান্য দিচ্ছি। মানুষ বিভিন্নভাবে তাদের গন্তব্যে পৌছানোর চেষ্টা করছেন। যানবাহনের অতিরিক্ত চাপ থাকলেও মহাসড়কে এখন পর্যন্ত যানজটের সৃষ্টি হয়নি।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন