• আজ শনিবার, ৩ আশ্বিন, ১৪২৮ ৷ ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ৷

১৫ আগস্ট ঘিরে আশঙ্কা একেবারে উড়িয়ে দিচ্ছি না: ডিএমপি ​কমিশনার

dmp 523
❏ শনিবার, আগস্ট ১৪, ২০২১ জাতীয়

সময়ের কণ্ঠস্বর, ঢাকা- ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) কমিশনার মোহা. শফিকুল ইসলাম বলেছেন, ১৫ আগস্ট ঘিরে কোনো ধরণের আশঙ্কা একেবারে উড়িয়ে দিচ্ছি না। তবে যেকোনো ধরনের ঘটনা এড়াতে আমরা সর্বোচ্চ মেধা দিয়ে চেষ্টা করছি।

শনিবার (১৪ আগস্ট) সকালে ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর এলাকা পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি জানান, জঙ্গিরা থেমে নেই। বাংলাদেশে যাতে আর একটিও জঙ্গি হামলার ঘটনা না ঘটে সে ব্যাপারে সর্বোচ্চ চেষ্টা করা হচ্ছে।

ডিএমপি কমিশনার বলেন, ‘গত পরশুদিন আমরা জঙ্গি সংগঠনের একজন লিডিং সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছি। তিনি বোমা বিশেষজ্ঞ, অনলাইনে তিনি বোমা তৈরির প্রশিক্ষণ দিতেন। নারায়ণগঞ্জের যে শক্তিশালী বোমা উদ্ধার হয়েছে সেটাও সরাসরি তার তত্ত্বাবধানে তৈরি করা হয়।

‘এই মাসে উল্লেখযোগ্য সংখ্যক জঙ্গি বা নাশকতাকারী গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তারা যে থেমে নেই এতটুকু বলা যায়, তবে আমরা আমাদের সর্বোচ্চটুকু দিয়ে চেষ্টা করে যাচ্ছি, যাতে বাংলাদেশ আরেকটি ঘটনাও না ঘটে।’

বর্তমানে তৎপর জঙ্গিরা ছোট ঘটনা ঘটিয়ে বিদেশি মিডিয়ায় আসতে চায়। সে জন্য তারা ১৫ আগস্টের মতো ইভেন্টকে বেছে নিতে পারে। তবে যারা এই তৎপরতা চালাচ্ছিল তাদের পুরো গ্রুপটি ধরা পড়েছে বলে দাবি করেন শফিকুল ইসলাম।

তিনি বলেন, ‘এখন যারা জঙ্গি হামলা করার চেষ্টা করছে, তাদের প্রধান টার্গেট হলো বিদেশি মিডিয়ায় আসা। ছোট একটি ঘটনা ঘটিয়ে যাতে আন্তর্জাতিক মিডিয়ায় আসতে পারে। এক্ষেত্রে ১৫ আগস্ট তাদের কাছে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ এবং তাৎপর্যপূর্ণ।

‘১৫ আগস্ট ভেন্যুর আশপাশে না হোক, ভেন্যু থেকে ২ কিলোমিটার দূরেও যদি তারা বোমা ফাটাতে পারে তাহলে আন্তর্জাতিক মিডিয়ার দৃষ্টি আকর্ষণ করবে। ফলে এই দিক বিবেচনায় তারা সর্বোচ্চ চেষ্টা করবে।’

ডিএমপি কমিশনার বলেন, ‘যে গ্রুপটি এটা ডেভলপ করে আসছিল। দেখেছেন, প্রথমে পাঁচটার ট্রাফিক পয়েন্টে ছোট ছোট বোমার বিস্ফোরণ ঘটিয়েছিল। তারপর ইনপ্রুভ ডিভাইস এনেছিল। সবশেষ শক্তিশালী বোমা তারা তৈরি করতে সক্ষম হয়েছিল। ধাপে ধাপে তারা উন্নতি করছিল। সেই পুরা গ্যাংটা ধরা পড়েছে।’

১৫ আগস্ট ঘিরে জঙ্গি তৎপরতার বিষয়ে কমিশনার বলেন, ‘আমরা আশংকার জায়গাটা উড়িয়ে দিচ্ছি না। এ ধরণের ঘটনা যাতে না ঘটে সেজন্য সর্বোচ্চ মেধা ও চেষ্টা দিয়ে আমরা তৎপর রয়েছি।’

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন