🕓 সংবাদ শিরোনাম
  • আজ শনিবার, ১০ আশ্বিন, ১৪২৮ ৷ ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ৷

কেরানীগঞ্জে আগুনে ২ শতাধিক দোকান পুড়ে ছাই, সব হারিয়ে নিঃস্ব ব্যবসায়ীরা

fire n3
❏ সোমবার, সেপ্টেম্বর ৬, ২০২১ ঢাকা

মাসুম পারভেজ, কেরানীগঞ্জ: ঢাকার কেরানীগঞ্জে কালীগঞ্জ নূরু মার্কেটে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে প্রায় ২ শতাধিক দোকান পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে ৩০-৪০ কোটি টাকা।

রবিবার রাত ১১টার দিকে ওই মার্কেটে আগুন লেগে তা ভয়াবহ আকার ধারণ করে। পরে ফায়ার সার্ভিস এসে তাদের দশটি ইউনিট কাজ করে রাত পৌনে ১টার দিকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়।

ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীদের দাবি, আগুনে ওই মার্কেটের ২ শতাধিক দোকান পুড়ে গেছে। এসব দোকানে কোটি কোটি টাকার তৈরি পোশাক ছিল। সমস্ত মালামাল পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।

স্থানীয় ব্যবসায়ীরা জানান, নুর সুপার মার্কেটটি টিনসেডের। ওই মার্কেটে ছয় শতাধিক দোকান রয়েছে। রাত ১১টার দিকে মার্কেটের পূর্বপাশে থাকা বৈদ্যুতিক ট্রান্সমিটার বিস্ফোরণ হয়ে আগুনের স্ফুলিঙ্গ গিয়ে একটি দোকানে ঢুকে পড়ে। সেখান থেকে আগুন দ্রুত পুরো মার্কেটে ছড়িয়ে পড়ে।

কেরানীগঞ্জ গার্মেন্ট ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক মুসলিম ঢালী বলেন, ওই মার্কেটে প্যান্ট, জামা, পাঞ্জাবি, গেঞ্জিসহ তৈরি পোশাকের শত শত দোকান রয়েছে। আগুনে বেশিরভাগ দোকান পুড়ে গেছে। করোনার কারণে এখানকার বেশিরভাগ ব্যবসায়ী চরম লোকসানের মধ্যে আছেন। এ অবস্থায় এই আগুন তাদের পথে বসিয়ে দিয়ে গেলো।

নুর সুপার মার্কেটের ইত্যাদি ফ্যাশনের মালিক বিপ্লব হোসেন জানান, সন্ধ্যায় তিনি দোকান বন্ধ করে বাড়িতে গিয়েছিলেন। আগুনের খবর পেয়ে এসে দেখেন তার দোকান পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। তার মতো তিন শতাধিক ব্যবসায়ী পথে বসে গেছেন।

বাংলাদেশ ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্সের অপারেশন অ্যান্ড মেইনটেনেন্স বিভাগের পরিচালক লেফটেন্যান্ট কর্নেল জিল্লুর রহমান বলেন, ফায়ার সার্ভিসের দশটি ইউনিটের দুই ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়েছি। প্রায় শতাধিক দোকান আগুনে পুড়ে গেছে। তবে ক্ষয়-ক্ষতির পরিমান এখনই বলা সম্ভব না। তদন্ত সাপেক্ষে আগুন লাগার সঠিক কারণ বলা যাবে।

এই ঘটনায় বাংলাদেশ ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের পক্ষ থেকে ৪ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন