• আজ রবিবার, ১৩ অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ ৷ ২৮ নভেম্বর, ২০২১ ৷

ফরিদপুরে দু’দল গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষ, নারীসহ আহত ১১

songhorso
❏ শনিবার, নভেম্বর ১৩, ২০২১ ঢাকা, দেশের খবর

হারুন-অর-রশীদ, ফরিদপুর প্রতিনিধি: ফরিদপুরের আলফাডাঙ্গায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে দু’দল গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষে মহিলাসহ ১১জন আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে ২ জনের অবস্থা গুরুতর।

শনিবার (১৩ নভেম্বর) দুপুরে আলফাডাঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ওয়াহিদুজ্জামান এ সংঘর্ষের এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, শুক্রবার (১২ নভেম্বর) সন্ধ্যার দিকে উপজেলার বুড়াইচ ইউনিয়নের বিল পুটিয়া ও জয়দেবপুর গ্রামের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

এলাকাবাসি ও পুলিশ জানায়, কয়েকদিন আগে বিল পুটিয়া গ্রামের ওহিদুল মোল্যার ছেলে সাগর মোল্যাকে মেয়ে পক্ষের লোকজন দেখতে আসেন। সেখানে ওহিদ মোল্যার আপন বড় ভাই ফারুক মোল্যার পরিবারকে না বলে পাশ্ববর্তী জয়দেবপুরের মোল্যাদের বলায় তার ছেলে লিটন মোল্যা আক্ষেপ করে ওয়াহিদুল মোল্যার বড় ছেলের কাছে বিদেশে ফোন করেন। তার জেরে কয়েক দিন ধরে চাচাতো ভাই সাগরের সাথে কথা কাটাকাটি চলে আসছে।

এরই জের ধরে জয়দেপুর গ্রামের লোকজনের সাথে বিলপুটিয়া গ্রামের লোক জনের সাথে বিতর্কে জড়িয়ে পড়লে। পরে উভয় পক্ষ স্থানীয় অস্ত্রসস্ত্র ইটপাটকেল ও লাঠিসোঁটা নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এতে নারীসহ ১১ জন আহত হন।

আহতরা হলেন, উপজেলার বারাংকুলা গ্রামের কওছার মোল্যা (৭০), কওছার মোল্যার ছেলে হাফিজুর মোল্যা (২০), বিলপুটিয়া গ্রামের উপিচিত মোল্যার ছেলে তারিকুল মোল্যা (৩৫), স্থানীয় ইউপি সদস্য মোঃ মুনছুর মোল্যার ছেলে সুফিয়ার মোল্যা (৩৫), আফজাল মুন্সির স্ত্রী নাজমা বেগম (৩৫),শাহিদুলের স্ত্রী জুলেখা বেগম (৩৮) ও ওয়াহিদুল মোল্যার বড় ভাই ফারুক মোল্য (৫০)।

এ ছাড়া ওয়াহিদুল গ্রুপের জয়দ্পেুর গ্রামের ছাইফুল মোল্যা (৫০),কামাল মোল্যা (২৫),পান্নু মোল্যা (৪০) ও হেলাল মোল্য (২৮)। আহতদের আলফাডাঙ্গা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে কাওছার মোল্যা ও তার ছেলে হাফিজুর মোল্যার অবস্থা গুরুতর।

আলফাডাঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ ওয়াহিদুজ্জামান বলেন, পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। তবে সংঘর্ষের ঘটনায় এখনো কোন পক্ষের অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।