সব মাধ্যমিক স্কুলে ভর্তি লটারির মাধ্যমে


❏ রবিবার, ডিসেম্বর ১৯, ২০২১ ফিচার

সময়ের কন্ঠস্বর ডেস্ক: বাংলাদেশের সরকারি ও বেসরকারি সব মাধ্যমিক স্কুলে এখন থেকে লটারির মাধ্যমে ভর্তি করা হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। শিক্ষার্থীদের ওপর চাপ কমাতে এবং তদবির বন্ধে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানান তিনি।

রোববার রাজধানীতে এক অনুষ্ঠানে মন্ত্রী একথা জানান।

জাতীয় শিক্ষা ব্যবস্থাপনা অ্যাকাডেমি (নায়েম) মিলনায়তনে বেসরকারি মাধ্যমিক স্কুলে শিক্ষার্থী ভর্তির ডিজিটাল লটারির উদ্বোধন করেন দীপু মনি।

করোনার মধ্যে গত বছর মহানগরীতে মাধ্যমিকে শিক্ষার্থী লটারি করে ভর্তি করা হয়েছিল। বিষয়টি প্রতি ইঙ্গিত দিয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘এটা যেহেতু চালু হয়েছে, প্রতি বছরই এটা থাকবে। গত বছর করা হয়েছিলে মহানগরে। এবার জেলা পর্যায়ে লটারি করা হয়েছে। উপজেলাগুলো লটরির আওতায় আনিনি। আগামীতে সব প্রতিষ্ঠান লটারির আওতায় আসবে।’

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘ভর্তির ক্ষেত্রে আগে আমরা যা দেখতাম, সেটা ভর্তিযুদ্ধ। এই রকম যুদ্ধ থেকে আমরা বেরিয়ে আসতে চাই। যেসব নেতিবাচক চর্চাগুলো রয়েছে, তা থেকে বেরিয়ে ইতিবাচক চর্চার চেষ্টা করছি।’

তিনি মনে করেন, স্কুলে ভর্তি পরীক্ষা শিশুদের ওপর প্রচণ্ড মানসিক চাপ তৈরি করে। ফলে একটা অসুস্থ প্রতিযোগিতা তৈরি হয়। এর মধ্যে একটি অনৈতিক বিষয়ও জড়িয়ে যায়। অনেক রকম তদবিরের চাপ থাকে। এসব বন্ধ করতেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

ডিজিটাল লটারির মাধ্যমে শিক্ষার্থী ভর্তির ফলে কোচিং বাণিজ্য নিয়ন্ত্রণে এসেছে দাবি করে শিক্ষমন্ত্রী বলেন, ‘স্কুলে ভর্তিযুদ্ধ তো হয়ই, আমাদের ওপরও যুদ্ধ চলে আসে। সবকিছু পড়ে বেশি নম্বর পেয়ে যদি স্কুলে ভর্তি হতে হয়, তাহলে স্কুলের কৃতিত্বটা কী? কম নম্বর পাওয়া একজন শিক্ষার্থীকে পড়িয়ে সে বেশি নম্বর পেলে সেটাই শিক্ষকের কৃতিত্ব।