• আজ সোমবার, ১০ মাঘ, ১৪২৮ ৷ ২৪ জানুয়ারি, ২০২২ ৷

গোপনে গোসলের ভিডিও ধারণ! প্রতিবাদ এলাকাজুড়ে, অবশেষে গ্রেফতার যুবক

গোপনে ভিডিও ধারণ
❏ মঙ্গলবার, ডিসেম্বর ২১, ২০২১ দেশের খবর, রংপুর

প্রতিবেশী শিক্ষিকার গোসল করার দৃশ্য গোপনে মোবাইলে ধারণ করার চেষ্টা চালাচ্ছিলেন পাড়ার কয়েকজন বখাটে যুবক। ঘটনা টের পেয়ে চিৎকার দেন শিক্ষিকা। গ্রামবাসী ছুটে আসতেই পালিয়ে যায় বখাটের দল।

ঘটনার প্রতিবাদে সড়কে নামেন স্কুলের শিক্ষার্থীসহ সর্বস্তরের এলাকাবাসী। এই ঘটনার জেরে অভিযোগ পেয়ে পুলিশ অভিযান চালিয়ে আটক করেছে অভিযুক্ত যুবকদের একজনকে। বাকিরা আপাতত গা ঢাকা দিয়েছেন, খোঁজ মিলছেনা কোথাও।

গাইবান্ধা প্রতিনিধি, সময়ের কণ্ঠস্বর: ঘটনার স্থান, গাইবান্ধার ফুলছড়ি উপজেলা। ঘটনার সময়- সোমবার সকাল। স্থানীয় প্রাথমিক বিদ্যালয়ের এক শিক্ষিকার গোসলের দৃশ্য মোবাইলে ভিডিও ধারণ করার অভিযোগে সাজু শেখ নামে এক যুবককে সোমবার দুপুরে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

ওই শিক্ষিকার স্বামী বাদী হয়ে ফুলছড়ি থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে। এর আগে আসামিকে গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবিতে ওই বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষিকা, ছাত্রছাত্রী ও এলাকাবাসী এক মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে।

অভিযোগে জানা গেছে, ফুলছড়ি মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ওই শিক্ষিকা সোমবার সকাল সাড়ে ৮টায় গজারিয়া গ্রামের ভাড়া বাসার গোসল খানায় গোসল সম্পন্ন করতে থাকে। এ সময় পার্শ্ববর্তী ইউনুছ আলীর ঘর থেকে একই ইউনিয়নের গলনা গ্রামের ফজল শেখের পুত্র সাজু শেখ ও অজ্ঞাত ২-৩ জন যুবক তাদের মোবাইল ফোনে গোপনে গোসলের ভিডিও ধারণ করে। ওই শিক্ষিকা ভিডিও ধারণের বিষয়টি বুঝতে পেরে চিৎকার দেয়।

এতে আশপাশের লোকজন ছুটে আসে। ততক্ষণে ভিডিও ধারণকারীরা ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়।

এ খবর ছড়িয়ে পড়লে ভিডিও ধারণকারীদের গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবিতে ফুলছড়ি মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষিকা, ছাত্রছাত্রী ও এলাকাবাসী উল্লাবাজার-ফুলছড়ি সড়কের ফুলছড়ি বাজার এলাকায় মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেন।

ফুলছড়ি থানার পুলিশ পরিদর্শক কাওছার আলী বলেন, ওই শিক্ষিকার স্বামী বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন। এর পরপরেই পুলিশ অভিযান চালিয়ে প্রধান আসামি সাজু শেখকে গ্রেপ্তার করে। অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারের জন্য পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।