হত্যার হুমকি পেলেও আইনি পদক্ষেপ নেননি রিয়াজ!

রিয়াজ
❏ মঙ্গলবার, জানুয়ারী ২৫, ২০২২ বিনোদন

বিনোদন ডেস্ক: গত কদিন ধরে বিভিন্ন মাধ্যমে চিত্রনায়ক রিয়াজকে কে বা কারা খুন করার হুমকি দিয়েছেন বলে তিনি অভিযোগ করেছেন। মঙ্গলবার বিএফডিসিতে প্যানেল পরিচিতি সভায় বক্তৃতাকালে এ কথা জানান রিয়াজ। এই অভিনেতা এবারের চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে ইলিয়াস কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেল থেকে সহসভাপতি পদে লড়ছেন।

মঙ্গলবার বেলা তিনটা থেকে শুরু হয় কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেলের পরিচিতি সভা। সেখানে হত্যার হুমকির বিষয়ে রিয়াজ বলেন, এফডিসির প্রতিটি ধুলিকনা আমাদের এই প্যানেলকে চাচ্ছে। দেশের ১৮ কোটি মানুষের মুখে এই প্যানেল নিয়ে আগ্রহ। সেখানে আমাকে খুন করার জন্য হুমকি আসছে। অজ্ঞাত নম্বর থেকে ফোন করে তাকে গত কয়েকদিন ধরে খুনের হুমকি দেওয়া হচ্ছে উল্লেখ করে রিয়াজ বলেন, এফডিসিতে গেলে নাকি আমার হাত-পা ভেঙে দেওয়া হবে। সেই নম্বরগুলো রিয়াজ সংরক্ষণ করে রেখেছেন বলে জানান তার বক্তব্যে।

এ ব্যাপারে কী পদক্ষেপ নিয়েছেন তিনি? সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে রিয়াজ বলেন, ‘আমি জিডিও করিনি, কাউকে কিছু বলিওনি। যত দূর ব্যবস্থা নেওয়ার নিয়েছি। নম্বরগুলো আমার ফোনে সেভ আছে। শুধু আমি না, আমার শিল্পী সমিতির কাউকে বা এফডিসির ঝাড়ুদারেরও যদি কিছু হয়, আমরা দেখে নেব। এফডিসির মাটি অন্যায় সহ্য করে না।’

এর আগে শিল্পী সমিতির ২০১৭-১৯ মেয়াদের নির্বাচনে মিশা সওদাগর ও জায়েদ খানদের প্যানেল থেকে সহসভাপতি পদে দাঁড়িয়েছিলেন রিয়াজ। জয়ও পেয়েছিলেন। কিন্তু পরে মিশা-জায়েদদের বিরুদ্ধে নানা অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ তুলে দল থেকে বেরিয়ে যান রিয়াজ। সঙ্গে নিয়েছিলেন ফেরদৌস এবং পপিকেও।

সেই রিয়াজ এবার ইলিয়াস কাঞ্চন-নিপুণদের প্যানেল থেকে মিশা-জায়েদদের বিপক্ষে নির্বাচন করছেন? খুনের হুমকি কি সে কারনেই ? এছাড়া গত শুক্রবার এফডিসিতে রিয়াজদের মিছিল থেকে তাদের প্যানেলের প্রার্থী ইমনকে পর পর দুইবার ধাক্কা মারে এক অপরিচিত যুবক। পরে জানা যায়, ওই যুবক শিল্পী সমিতির কেউ না, তবে মিশা-জায়েদ প্যানেলের পক্ষে কাজ করছে।

ওই ঘটনায় কড়া হুঁশিয়ারি দিয়ে রিয়াজ বলেন, ‘তাদের (মিশা-জায়েদ) ধাক্কাধাক্কির দীর্ঘ ইতিহাস রয়েছে। মনে হচ্ছে এটা রিহার্সেল দিচ্ছে। আমরাও কিন্তু হাত বাড়িতে রেখে আসিনি। হাত আমাদের সঙ্গেও আছে। আমরা চরম সহনশীলতার পরিচয় দিচ্ছি।’

রিয়াজকে খুনের হুমকি এই হুঁশিয়ারির কারণেও দেওয়া হতে পারে বলে এফডিসির অভ্যন্তরে আলোচনা চলছে। যদিও এসব নিয়ে মঙ্গলবারের প্যানেল পরিচিতি সভায় কোনো মন্তব্য করেননি এই অভিনেতা ।

উল্লেখ্য, শিল্পী সমিতির ১৭তম নির্বাচনের ভোট ২৮ জানুয়ারি। ২০২২-২৪ মেয়াদের এই নির্বাচনে রিয়াজদের প্যানেল থেকে এবার সভাপতি পদপ্রার্থী ‘বেদের মেয়ে জোছনা’র নায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন এবং সাধারণ সম্পাদক পদপ্রার্থী চিত্রনায়িকা নিপুণ আক্তার।

এই প্যানেল থেকে বিভিন্ন পদে আরও আছেন ডি এ তায়েব,সাইমন সাদিক, শাহনুর, নিরব হোসেন, আরমান, ইমন, আজাদ খান, অমিত হাসান, ফেরদৌস, শাকিল খান, নানা শাহ, আফজাল শরীফ, কেয়া, পরীমনি, জেসমিন, সাংকো পাঞ্জা ও গাংগুয়া।