আগামী নির্বাচন কোন কৌশলে মানুষ জানতে চায় : সংসদে হারুন

harun n234
❏ বৃহস্পতিবার, জানুয়ারী ২৭, ২০২২ জাতীয়

সময়ের কণ্ঠস্বর, ঢাকা- বিএনপিদলীয় সংসদ সদস্য হারুনুর রশীদ বলেন, ২০১৪ সালে বিনাভোটে নির্বাচন হয়েছে, ২০১৮ সালে দিনের ভোট রাতে হয়েছে। আগামী নির্বাচন আরও কোনো কৌশলে হবে কিনা তা জানতে চায় মানুষ।

বৃহস্পতিবার নির্বাচন কমিশন গঠন আইনের বিল পাসের জন্য সংসদে প্রস্তাব আনেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। সেই বিলের ওপর আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি এসব কথা বলেন।

হারুনুর রশীদ বলেন, দেশে নির্বাচনের যে বেহাল দশা, অনিয়ম হচ্ছে এজন্য আগামী নির্বাচন তত্বাবধায় সরকারের অধীনে হওয়া দরকার।

তিনি বলেন, আইনে বলা হয়েছে, বাংলাদেশে একটি নির্বাচন কমিশন আইন থাকবে যার মধ্যে প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও অন্যান্য কমিশনার নিয়োগের বিধান থাকবে। কিন্তু নির্বাচন কমিশনাররা কোনো অপরাধ করলে কি হবে তার পরিষ্কার ব্যাখ্যা নেই আইনে।

নির্বাচন কমিশন গঠন আইনের বিষয়ে সংসদে আইনমন্ত্রী আনিসুল হকের নিউজিল্যান্ডসহ অন্যান্য দেশের উদাহরণের বিষয়ে হারুন বলেন, সেসব দেশে স্বেচ্ছায় পদত্যাগের ঘটনা ঘটে। আমাদের দেশে তা হয় না।

উদাহরণ হিসেবে তিনি শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনির প্রসঙ্গ টানেন। তিনি বলেন, আজ সকালে পত্রিকায় প্রতিবেদনে দেখলাম চাঁদপুরে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের জন্য ভূমি অধিগ্রহণের আগেই সেখানকার জমি অধিগ্রহণ নিয়ে ব্যাপক দুর্নীতির ঘটনা ঘটেছে। তাহলে শিক্ষামন্ত্রী কি পদত্যাগ করবেন?

এমপি হারুন বলেন, এই দুর্নীতির ব্যাপারে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রতিবেদন পাঠানো হয়েছে। সেখানে ১০০ কোটি টাকার জমিকে ৬০০ কোটি টাকা দেখানো হয়েছে।

তিনি বলেন, এগুলো আমার কথা নয়। এগুলো আজকের জাতীয় পত্রিকার প্রথম পাতার খবর।

এমপি হারুন বলেন, আমার সঙ্গে শিক্ষামন্ত্রীর অত্যন্ত সৌহার্দপূর্ণ সম্পর্ক। আমি বলছি, কারণ আমাকে নিউজিল্যান্ডের উদাহরণ দেওয়া হয়েছে।