🕓 সংবাদ শিরোনাম

জমি দখলে বাধা দেওয়ায় সন্ত্রাসী হামলা, বৃদ্ধসহ আহত-২ভারতের বেঙ্গালুরুতে বাংলাদেশি নারীকে ধর্ষণের দায়ে ১১ জনের কারাদণ্ড‘সংকট নিরসনে শ্রীলঙ্কা ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মডেল’ অনুসরন করতে পারে’স্কুল ফাঁকি দেয়া শিক্ষকদের বিরুদ্ধে শাস্তির বিধান রাখা উচিত: মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রীটানা ৩১ দিন করোনায় মৃত্যুহীন দেশ, গত ২৪ ঘন্টায় শনাক্ত ১৬দেশের চিকিৎসা বিজ্ঞানে নতুন আবিস্কার: হেপাটাইটিস-বি ভাইরাসের ওষুধ ‘ন্যাসভ্যাক’রাতগভীরে ঘুম থেকে উঠে গলায় ফাঁস দিয়ে স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যাবিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মধ্যে শাবিপ্রবি পেল সর্বোচ্চ বরাদ্দবঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টে শায়েস্তাগঞ্জ পৌরসভা চ্যাম্পিয়াননির্বাচনে ভোটারদের না আসার প্রবণতা রয়েছে: নির্বাচন কমিশনার

  • আজ রবিবার, ৮ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ ৷ ২২ মে, ২০২২ ৷

বাল্যবিবাহের বিচারে ব্যতিক্রমী আদেশ: ছেলের বাবা ও মেয়ের মায়ের এক ঘণ্টার হাজতবাস


❏ বুধবার, মে ১১, ২০২২ আলোচিত বাংলাদেশ

যশোর প্রতিনিধি: বাল্যবিবাহের আট মাসের মাথায় স্বামীর বিরুদ্ধে যৌতুকের মামলা করেছিলেন এক গৃহবধূ। গতকাল মঙ্গলবার ওই মামলার শুনানি ছিল।

আসামি ও বাদীর উপস্থিতিতে শুনানি চলাকালে বিচারকের নজরে আসে ওই গৃহবধূ নাবালিকা।

বিচারক তাৎক্ষণিক দুপক্ষের অভিভাবককে ডাকেন। তাঁদের কাছে বাল্যবিবাহের কারণ জানতে চান। দুপক্ষের কেউই সন্তোষজনক জবাব দিতে না পারায় ছেলের বাবা ও মেয়ের মাকে শাস্তি স্বরূপ আদালতের হাজতে পাঠান।

ঘটনাটি মঙ্গলবার দুপুরে যশোরের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট চৌগাছার আমলি আদালতে ঘটে। পরে আদালতের বিচারক মঞ্জুরুল ইসলাম এক ঘণ্টা পর তাঁদের মুক্তি দেন।

একই সঙ্গে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে সুখ, শান্তি বিরাজে অভিভাবকদের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালনের নির্দেশনা দিয়ে আগামী ২৬ জুলাই মামলাটির পরবর্তী দিন ধার্য করেন। বিচারকের দেওয়া ব্যতিক্রমী এ আদেশ আদালতপাড়ায় আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হয়। বিচারকের প্রশংসা করতে থাকেন বিচারপ্রার্থীসহ আইনজীবীদের অনেকেই।

আদালত সূত্র জানায়, ২০২১ সালের ২৫ জুন যশোর সদর উপজেলার হাশিমপুর গ্রামের আসমত আলীর ছেলে সোহাগ হোসেনের সঙ্গে ওই গৃহবধূর বিয়ে হয়। বিয়ের মজলিশেই সোহাগ দুই লাখ টাকা যৌতুক দাবি করেন। তাৎক্ষণিক ৫০ হাজার টাকা দেওয়া হয়। এক মাস পর থেকেই বাকি দেড় লাখ টাকার জন্য স্ত্রীকে মারপিট করেন সোহাগ। বিয়ের আট মাসের মাথায় গত ১ ফেব্রুয়ারি ওই গৃহবধূ স্বামীর বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেন।

সূত্র জানায়, ছেলের বয়স ২১ বছর হলেও ওই গৃহবধূর বয়স আঠারোর কম, যা শুনানির সময় আদালতের দৃষ্টিতে আসে। তাদের যে বাল্য বিয়ে হয়েছে বিষয়টি আদালতের কাছে সন্দেহাতীতভাবে প্রতীয়মান হয়। ফলে আদালত দুই অভিভাবককে এ শাস্তি প্রদান করেন।