• আজ রবিবার, ১৭ আশ্বিন, ১৪২৯ ৷ ২ অক্টোবর, ২০২২ ৷

রংপুরে বৃষ্টির জন্য বিশেষ নামাজ ও মোনাজাত


❏ মঙ্গলবার, জুলাই ১৯, ২০২২ রংপুর

সাইফুল ইসলাম মুকুল, স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, রংপুর: রংপুরে বৃষ্টির জন্য দুই রাকাত নামাজ আদায় করে বিশেষ মোনাজাত করেছেন মুসল্লিরা। নামাজ শেষে অনাবৃষ্টি ও তাপদাহ থেকে মুক্তির জন্য ও আল্লাহর রহমত কামনা করে মোনাজাত করা হয়।

মঙ্গলবার সকাল ১১টায় রংপুরের প্রধান ঈদগাহ মাঠ কালেক্টরেট ময়দানে দুই রাকাত নামাজ আদায় ও বিশেষ মোনাজাতের আয়োজন করে রংপুর সম্মিলিত ঈমাম পরিষদ। এ সময় স্বস্তির বৃষ্টির আকুতি জানিয়ে কান্নায় ভেঙে পড়েন তাপপ্রবাহে হাঁপিয়ে ওঠা মানুষজন।

নামাজ শেষে মুসল্লিরা জানান, প্রচণ্ড তাপদাহে পুড়ছে রংপুরাঞ্চল। গরমে অতিষ্ঠ হয়ে ওঠেছে মানুষের জীবন। এই তাপদাহ ও অনাবৃষ্টি থেকে আল্লাহর নিয়ামতের জন্য এই নামাজ আদায় করেছেন তারা।

কৃষক আলমগীর নামাজ আদায় করে আসেন প্রায় ১০ কিলোমিটার দূরের গংগাচড়া থেকে। তিনি বলেন, পর্যাপ্ত বৃষ্টিপাতের অভাবে আমনের আবাদ নিয়ে চরম দুশ্চিন্তায় দিন পার করছি। বৃষ্টির অভাবে বর্ষাকালেও ডাঙা ও আবাদি জমি ফেটে চৌচির হয়ে গেছে। তাই খরা ও অনাবৃষ্টি থেকে রক্ষা পেতে দুই রাকাআত নামাজ আদায় করলাম। তার মতো আরও অনেকেই এসেছেন এই নামাজ আদায়ে।

ক্বারী আতাউল হক বলেন, এ বছর তেমন বৃষ্টি নেই। তাই আল্লাহর দরবারে দুই রাকাত নামাজ পড়ে দোয়া করেছি। আল্লাহ যেন এই পরিস্থিতির অবসান ঘটান, তার জন্য দোয়া করেছি।

এই আয়োজক সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মাওলানা হাফিজুল ইসলাম জানান, এমন দুর্ভোগ থেকে মুক্তি পেতে ও মহান আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জনসহ আনুগত্য প্রকাশে এই নামাজ আদায় করা হয়েছে।

নামাজে ঈমামতি ও মোনাজাত পরিচালনা করেন— রংপুরের ঐতিহাসিক কেরামতিয়া মসজিদের খতিব হাফেজ মাওলানা বায়েজিদ হোসাইন।

বৃষ্টি চেয়ে নামাজ আদায় ও আল্লাহর দরবারে দোয়া মোনাজাতে জনপ্রতিনিধি, প্রশাসন, সাধারণ মানুষসহ বিভিন্ন এলাকার প্রায় ৫ হাজার মুসল্লি অংশ নেন।