🕓 সংবাদ শিরোনাম
  • আজ বুধবার, ২০ আশ্বিন, ১৪২৯ ৷ ৫ অক্টোবর, ২০২২ ৷

প্রশংসায় ভাসছেন মেট্রোরেলের প্রথম নারী চালক আফিজা


❏ বুধবার, আগস্ট ৩, ২০২২ আলোচিত বাংলাদেশ

সময়ের কন্ঠস্বর ডেস্ক: নাম আফিজা মরিয়ম। মেট্রোরেলের প্রথম নারী চালক। তিনি নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (নোবিপ্রবি) নবম ব্যাচের শিক্ষার্থী। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা ও কর্মচারীসহ সারাদেশের মানুষের প্রশংসায় ভাসছেন তিনি।

নোবিপ্রবি থেকে কেমিস্ট্রি অ্যান্ড কেমিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয়ে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রি নিয়েছেন মরিয়ম। মেট্রোরেলের প্রথম নারী চালক হিসেবে তার নিয়োগ পাওয়ার এ সাফল্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের সবাই খুশি।

মেট্রোরেলের চালকের পদটির নাম ‘ট্রেন অপারেটর’। এই পদে ২৫ জনের সঙ্গে ২০২১ সালের ২ নভেম্বর নিয়োগ পেয়েছেন তিনি। এই শিক্ষার্থী লক্ষ্মীপুর জেলার রামগঞ্জ উপজেলার করপাড়া ইউনিয়নের সন্তান।

মেট্রোরেলের প্রথম নারী চালক হতে পেরে উচ্ছ্বসিত মরিয়ম। তিনি বলেন, ‘মেট্রোরেল বাংলাদেশে প্রথম। এই আগ্রহ থেকে চাকরির আবেদন করেছি। গত বছরের নভেম্বরে আমি নিয়োগ পেয়েছি। বাংলাদেশের জন্য মেট্রোরেল যেমন স্বপ্নের মতো, ঠিক তেমনি আমার কাছেও একটা স্বপ্ন। আমি নিজে ট্রেন চালাবো এটা ভেবে বেশ আনন্দ লাগছে। আর স্বপ্ন বুনছি সেই মাহেন্দ্রক্ষণের। মেট্রোরেল আগামী ১৬ ডিসেম্বর চালুর কথা রয়েছে।

মরিয়ম ইতোমধ্যে চট্টগ্রামের হালিশহরে বাংলাদেশ রেলওয়ের ট্রেনিং একাডেমিতে দুই মাস ও ঢাকায় আরও চার মাস প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। বর্তমানে রাজধানীর উত্তরার দিয়াবাড়িতে মেট্রোরেলের ডিপোতে নির্মাতা প্রতিষ্ঠান জাপানের মিতসুবিশি-কাওয়াসাকি কোম্পানির বিশেষজ্ঞদের কাছে ট্রেন পরিচালনার কারিগরি ও প্রায়োগিক নানা প্রশিক্ষণ দিচ্ছেন।

এদিকে, আফিজা মরিয়মের সাফল্য কামনা করে নোবিপ্রবির কেমিস্ট্রি অ্যান্ড কেমিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. নেওয়াজ মোহাম্মদ বাহাদুর বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিস্ময় প্রকল্প মেট্রোরেল। প্রধানমন্ত্রী সবসময় নারীর অধিকার প্রতিষ্ঠায় কাজ করে যাচ্ছেন। তার অংশ হিসেবে আমাদের নবম ব্যাচের শিক্ষার্থী আফিজা মরিয়ম মুন্নিকে মেট্রোরেলের প্রথম নারী চালক হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন। তার এ সাফল্যে বিশ্ববিদ্যালয় পরিবার গর্বিত ও আনন্দিত।’

নোবিপ্রবির উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. দিদার-উল-আলম বলেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয়ের যেকোনো শিক্ষার্থী তার কর্মজীবনে ভালো স্থানে গেলে আমাদের ভালো লাগে। উচ্চশিক্ষিত আফিজা একজন সাহসী নারী। আমি তার আরও সফলতা ও সর্বাঙ্গীণ উন্নতি কামনা করছি।