🕓 সংবাদ শিরোনাম

❏ অ্যাম্বুল্যান্সে উঠিয়ে নিয়ে কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগে আটক চালক * ইন্দোনেশিয়ায় ফুটবল মাঠে সংঘর্ষ, নিহত বেড়ে ১৭৫ * অনলাইনের আওতায় আসছে সরকারি টিএ-ডিএ বিল * টোল প্লাজায় থানার ওসি ও গাড়িচালকে কুপিয়ে মোবাইল-টাকা ছিনতাই ! * প্রবাসী ছদ্মবেশে যেভাবে বিমানবন্দরে প্রবাসীদের সর্বস্ব লুটে নিতেন অজ্ঞান পার্টি * সবজির হাটে নিয়ন্ত্রণ হারানো ট্রাক, নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৫ * রাতভর ফ্ল্যাটে আটকে কিশোরী ও শিশুকে দলবদ্ধ ধর্ষণ, আটক ৫ অভিযুক্ত * কুবিতে ছাত্রলীগের দু-পক্ষের প্রকাশ্যে অস্ত্রের মহড়া, হল বন্ধের ঘোষণা * অটোরিকশায় তরুনীকে যৌন হয়রানি, কারাগারে এএসআইসহ ২ জন * যুগপৎ আন্দোলনে বড় ‘চমক’ দেখানোর আভাস বিএনপির *

  • আজ রবিবার, ১৭ আশ্বিন, ১৪২৯ ৷ ২ অক্টোবর, ২০২২ ৷

পঞ্চগড়ে প্রাথমিক নিয়োগ পরীক্ষায় জালিয়াতির অভিযোগে পরীক্ষার্থী শ্রীঘরে

Panchagar news
❏ বৃহস্পতিবার, আগস্ট ৪, ২০২২ রংপুর

নাজমুস সাকিব মুন, পঞ্চগড় প্রতিনিধি: পঞ্চগড়ে প্রাথমিক নিয়োগ পরীক্ষায় প্রক্সির মাধ্যমে লিখিত পরীক্ষায় পাশ করে মৌখিক পরীক্ষা দিতে গিয়ে জালিয়াতির অভিযোগে স্বপন সেন (২৯) নামে এক পরীক্ষার্থীকে পুলিশে সোপর্দ করেছেন প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ বোর্ড।

বৃহস্পতিবার (৪ আগস্ট) দুপুরে পঞ্চগড় জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে স্বপন সেন মৌখিক পরীক্ষার জন্য উপস্থিত হলে জালিয়াতির বিষয়টি ধরা পড়ে। পরে তাকে পুলিশে সোপর্দ করা হয়। আটককৃত স্বপন পঞ্চগড় সদর উপজেলার ধাক্কামারা ইউনিয়নের লাঙলগাঁও এলাকার কমলা কান্ত সেনের ছেলে।

এদিকে প্রাথমিক নিয়োগ বোর্ড সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার সকাল থেকে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে প্রাথমিক নিয়োগ পরীক্ষার মৌখিক পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। মৌখিক পরীক্ষায় স্বপনকে লিখতে বলা হয়। এই সময় লিখিত পরীক্ষার খাতার লেখার সাথে স্বপন সেনের লেখার মিল না থাকায় নিয়োগ বোর্ডের সন্দেহ হয়। পরে তাকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করলে সে স্বীকার করে নিয়োগের জন্য লিখিত পরীক্ষা প্রক্সির মাধ্যমে অন্যের দ্বারা দিয়ে ছিল এবং এজন্য সে মোটা অংকের টাকাও লেনদেন করে বলে স্বীকার করেন। পরে তাকে জেলা প্রশাসকের কক্ষে আটক করে সদর থানা পুলিশকে খবর দেয়া হয়।

পঞ্চগড় জেলা প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ বোর্ডের চেয়ারম্যান ও জেলা প্রশাসক জহুরুল ইসলাম বলেন, আটক স্বপনকে মৌখিক পরীক্ষা শেষে একটি কাগজে লিখতে বলা হয়। তার হাতের লেখা দেখে প্রাথমিকভাবে আমাদের সন্দেহ হয়। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে সে স্বীকার করে অন্য কাউকে দিয়ে লিখিত পরীক্ষা দিয়েছিলেন এবং এজন্য সে মোটা অংকের টাকা লেনদেন করেছেন। এজন্য তাকে পুলিশের হাতে তুলে দেয়া হয়।

পঞ্চগড় সদর থানার ওসি (তদন্ত) বেনজির আহমেদ আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, পরীক্ষায় জালিয়াতির অভিযোগে এক পরীক্ষার্থীকে জেলা প্রশাসকের কার্যালয় থেকে দুপুরে থানায় আনা হয়। তাদের বিরুদ্ধে জালিয়াতির অভিযোগে মামলার প্রস্তুতি চলছে।