🕓 সংবাদ শিরোনাম

ঢাকাসহ বিভিন্ন এলাকায় বিদ্যুৎ এসেছে, স্বাভাবিক হবে দ্রুতই * আফ্রিকায় আইইডি বিস্ফোরণে ৩ বাংলাদেশি শান্তিরক্ষী নিহত * উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে গোলাগুলি: কিশোরীর মৃত্যু * পাবনায় দাঁড়িয়ে থাকা ট্রাককে কাভার্ডভ্যানের ধাক্কা, নিহত ২ * হজে যাওয়ার ৬৫ বছরের বয়সসীমা থাকছে না: ধর্ম প্রতিমন্ত্রী * মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে ‘ভুল’ বক্তব্যের প্রতিবাদে মানববন্ধন: আ.লীগ নেতার ভুল স্বীকার * কণ্ঠশিল্পী আসিফের ছেলের বিয়ে সম্পন্ন * সকল ধর্মের মানুষ মিলেই বাংলাদেশ: শিক্ষামন্ত্রী * পঞ্চগড়ে নৌকাডুবি: আট কারণ ও পাঁচ সুপারিশ উল্লেখ করে তদন্ত প্রতিবেদন জমা * রংপুরে পূজা দেখে ফেরার পথে গাড়িচাপায় ২ জনের মৃত্যু *

  • আজ মঙ্গলবার, ১৯ আশ্বিন, ১৪২৯ ৷ ৪ অক্টোবর, ২০২২ ৷

মেয়েদের জমি লিখে দেওয়ার বিরোধে বাবার হাতে খুন হলেন ছেলে


❏ মঙ্গলবার, আগস্ট ১৬, ২০২২ দেশের খবর, রাজশাহী

রাজশাহী প্রতিনিধি: মেয়েদের নামে জমি লিখে দেন বাবা আবদুল কুদ্দুস (৬৭)। এই নিয়ে দুই ছেলের সঙ্গে বিরোধ চলে আসছিল বাবার। সেই জমিতে চাষ করা পাট তুলতে গিয়ে বাবার হাতে খুন হন ছেলে জাহাঙ্গীর হোসেন (৪৫)। এ ঘটনায় অভিযুক্ত বাবাকে আটক করেছে পুলিশ।

আজ মঙ্গলবার সকাল ১০টার দিকে উপজেলার সরদহ ইউনিয়নের হুজারপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত জাহাঙ্গীর হোসেন ঝিকরা গ্রামের আব্দুল কুদ্দুসের বড় ছেলে। চারঘাট মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল লতিফ এসব তথ্য নিশ্চিত করেন।

পুলিশ ও নিহত ব্যক্তির পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, জাহাঙ্গীর হোসেনেরা দুই ভাই। প্রথম স্ত্রী মারা যাওয়ার পর তাঁদের বাবা আবদুল কুদ্দুস দ্বিতীয় বিয়ে করেন। সেই পক্ষের দুই মেয়ে রয়েছে। কয়েক মাস আগে আবদুল কুদ্দুস দুই মেয়ের নামে জমি রেজিস্ট্রি করে দেন। এর জের ধরে পারিবারিক কলহ চলছিল।

মঙ্গলবার সকালে জাহাঙ্গীর হোসেন হুজারপাড়া বিলের জমিতে পাট কাটতে যান। এ সময় আবদুল কুদ্দুস এবং তাঁর দুই জামাতা শনির আলী ও মনির আলী পাট কাটতে নিষেধ করেন। এ সময় তর্কাতর্কির একপর্যায়ে তিনজন মিলে জাহাঙ্গীর হোসেনকে কুপিয়ে গুরুতর আহত করেন। স্থানীয় লোকজন উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান।

নিহত ব্যক্তির ভাই রাজীব আলী বলেন, ‘জমিতে আমরা দুই ভাই পাটের আবাদ করেছি। পাট কাটতে গেলে আমার বাবা তাঁর দুই জামাতাকে সঙ্গে নিয়ে বাধা দেন। এ সময় প্রথমে আমার বাবা হাঁসুয়া দিয়ে আমার ভাইয়ের মাথায় কোপ দেন। সে মাটিতে লুটিয়ে পড়লে অন্যরাও কোপানো শুরু করে। হাসপাতালে নেওয়ার পথে ভাইয়ের মৃত্যু হয়।’

এ বিষয়ে চারঘাট মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল লতিফ বলেন, জমির বিরোধে জাহাঙ্গীর হোসেন খুন হয়েছেন। তাঁর মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রামেক হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। ঘটনার প্রধান অভিযুক্ত আবদুল কুদ্দুসকে আটক করা হয়েছে।