• আজ বুধবার, ২০ আশ্বিন, ১৪২৯ ৷ ৫ অক্টোবর, ২০২২ ৷

অপমান সইতে না পেরে রাজমিস্ত্রীর আত্মহত্যার অভিযোগ


❏ রবিবার, সেপ্টেম্বর ১১, ২০২২ ঢাকা, দেশের খবর

এ এম উবায়েদ, নিজস্ব প্রতিনিধি: চুরির অপমান সইতে না পেরে নাহিদ (২০) নামে রাজমিস্ত্রী আত্মহত্যা করেছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। চুরির অপবাদে মারধর করা হয় রাজমিস্ত্রীকে। তিন লাখ টাকা পরিশোধের শর্তে স্বাক্ষরও নেওয়া হয় স্ট্যাম্পে।

ঘটনাটি ঘটেছে কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়া উপজেলার পাইকলক্ষ্মীয়া গ্রামে। নিহত নাহিদ পাইকলক্ষ্মীয়া গ্রামের মৃত আবদুল কুদ্দুসের ছেলে।

শুক্রবার রাতে নাহিদের বড় ভাই দ্বীন ইসলাম বাদী হয়ে তিনজনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরও দুইজনকে আসামি করে পাকুন্দিয়া থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

উপজেলার চরফরাদী ইউনিয়নের গান্ধারচর গ্রামের বাবুল মিয়া (৪৫), তার ছেলে নাঈম (২৫) ও একই গ্রামের খোকন মিয়ার ছেলে ইয়াসিনকে (২৫) মামলায় আসামি করা হয়েছে ।

এদিকে চুরির অপবাদ সইতে না পেরে বৃহস্পতিবার রাত পৌনে ৯টার দিকে বাড়িতে বিষ খেয়ে বাড়ির উঠানে কাতরাতে থাকেন নাহিদ। তাকে উদ্ধার করে প্রথমে পাকুন্দিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে কিশোরগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নেওয়া হয়। অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় সেখান থেকে কর্তব্যরত চিকিৎসক শুক্রবার তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করেন। সেখানে নেওয়ার পথে সন্ধ্যা ৭টার দিকে মৃত্যু হয় নাহিদের।

পাকুন্দিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. সারোয়ার জাহান জানান, এ ঘটনায় শুক্রবার রাতেই আত্মহত্যার প্ররোচনার অভিযোগ এনে নাহিদের বড় ভাই দ্বীন ইসলাম বাদী হয়ে তিনজনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরও দুই জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেছেন। আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে।