• আজ রবিবার, ১৯ অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ ৷ ৪ ডিসেম্বর, ২০২২ ৷

পিটিআই প্রধান ইমরান খানসহ গুলিবিদ্ধ সকলেই শঙ্কামুক্ত


❏ বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ৩, ২০২২ আন্তর্জাতিক

অনলাইন ডেস্ক : পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও পাকিস্তান তেহরিক–ই–ইনসাফের (পিটিআই) প্রধান ইমরান খান শঙ্কামুক্ত। তাঁর সঙ্গে গুলির আঘাতে আহত হওয়া বাকি ৩ জনও শঙ্কামুক্ত । পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যম দ্য ডনের এক প্রতিবেদন থেকে এই তথ্য জানা গেছে।

পিটিআই নেতা হাম্মাদ আজহার এক টুইটে বলেছেন, ‘ওমর মায়ারের পায়েও একটি বন্দুকের গুলি লেগেছে। তিনি স্থিতিশীল। আমাদের পিটিআই কর্মী রশিদের একটি হাত গুরুতর আহত হয়েছে, সেও স্থিতিশীল। একটি গুলি ফয়সাল জাভেদের গালে আঁচড় দিয়েছিল, তিনিও স্থিতিশীল।’

এদিকে, আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে পাকিস্তানের ওয়াজিরাবাদ শহরে ‘হাকিকি আজাদ’ লংমার্চে অংশ নিতে গিয়ে গুলিবিদ্ধ হন ইমরান। এ সময় পিটিআইয়ের আরেক নেতা ফয়সাল জাভেদসহ আরও একজন গুরুতর আহত হন। হামলাকারীকে আটক করা হয়েছে।

পাকিস্তানের সংবাদমাধ্যম দ্য ডনের এক প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, পিটিআই নেতা ফাওয়াদ চৌধুরী ইমরান খান এবং ফয়সাল জাভেদের গুলিবদ্ধ হয়ে আহত হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেছেন, ‘ইমরান খানের পায়ে গুলি লেগেছে।’ তবে তাঁর আঘাত কতটা গুরুতর তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। গুলিবিদ্ধ হওয়ার পরপরই ইমরান খানকে তাঁকে বহন করা কনটেইনার ট্রাক থেকে নামিয়ে একটি গাড়িতে তোলা হয়। ফাওয়াদ চৌধুরী আরও জানান, ইমরান খানকে হত্যার লক্ষ্যেই গুলি চালানো হয়েছিল।

হামলার পরপরই পাকিস্তানি সম্প্রচারমাধ্যম আওয়াজ টিভিকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে ফাওয়াদ চৌধুরী বলেন, ‘ইমরান খানসহ মোট তিনজন এই হামলায় আহত হয়েছেন। অন্য দুজন হলেন—সিনেটের ফয়সাল জাভেদ এবং আহমাদ ছাত্তা।’

অপরদিকে, বার্তা সংস্থা এএফপির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ইমরান খানের ওপর সন্দেহভাজন হামলাকারীকে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে। ইমরান খানের ঘনিষ্ঠ সহযোগী রওফ হাসান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেছেন, ‘দ্বিতীয় আরেকজন হামলাকারীকে আটক করে পুলিশ হেফাজতে দেওয়া হয়েছে।’ তবে, মূল হামলাকারী কে সে বিষয়ে রওফ কোনো তথ্য নিশ্চিত করতে পারেননি।

লংমার্চে ইমরান খান গুলিবিদ্ধ

ইমরান খানের ওপর সন্দেহভাজন হামলাকারীকে গুলি করে হত্যা