চুয়াডাঙ্গায় দুই মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেল ২ জনের


❏ সোমবার, নভেম্বর ২১, ২০২২ খুলনা, দেশের খবর

শামসুজ্জোহা পলাশ, চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি: চুয়াডাঙ্গা দামুহুদা উপজেলার চন্ডিপুর গ্রামে দুই মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে দুই তরুণ নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আরো ৩ জন গুরুতর আহত হয়েছে। নিহত দু’জন হলো আনিদুল (১৮) ও রাতুল (১৯)।

রোববার (২০ নভেম্বর) রাত ৯ টার দিকে চুয়াডাঙ্গার দর্শনা-মুজিবনগর সড়কের চন্ডিপুর গ্রামের বড়মসজিদের কাছে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত আনিদুল দামুড়হুদার কার্পাসডাঙ্গা আবাসনের বাসিন্দা আব্দুল আলিমের ছেলে ও রাতুল (১৯) চন্ডিপুর গ্রামের তারিকুল ইসলামের ছেলে।

এদিকে আজ সোমবার সকাল ১০টার সময় কার্পাসডাঙ্গা আবাসন কবরস্থানে আনিদুলকে ও বাদ জোহর পারিবারিক কবরস্থানে রাতুলেকে নামাজের জানাজা শেষে দাফন করা হয়।

আহতরা হলেন, উপজেলার কার্পাসডাঙ্গা গ্রামের কলেজপাড়ার শহিদুল ইসলামের ছেলে রাহুল (১৯), একই গ্রামের পূর্বপাড়ার মিজানুর রহমানের ছেলে হৃদয় হোসেন (১৯) ও ধান্যঘরা গ্রামের কাশেম শাহ’র ছেলে রাজু আহমেদ (২১)।

প্রত্যক্ষদর্শীদের থেকে জানা যায়, নিহত আনিদুল ও তার দুই বন্ধু দর্শনার দিকে যাচ্ছিল। এমন সময় চন্ডিপুর মসজিদের কাছে পৌছালে বিপরীত দিক থেকে আসা দ্রুতগতির একটি মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে দুই মোটরসাইকেল ৫ আরোহী রাস্তার সিটকে পড়েন।

স্থানীয় লোকজন তাদেরকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে আনিদুলকে মৃত ঘোষণা করেন। আহত ৪ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাদেরকে রাজশাহীত ও ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করেন। ঢাকা মেডিকেল কলেজে ভর্তি পর ভোর রাতে রাতুল মারা যায়।

চুয়াডাঙ্গা জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক আব্দুল কাদের বলেন, হাসপাতালে আসার আগেই আনিদুলের মৃত্যু হয়েছিল।

দর্শনা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) লুৎফুল কবীর বলেন, দুই মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে দুই যুবক নিহত হয়েছে। আহদের ঢাকা ও রাজশাহী মেডিকেলে ভর্তি করা হয়েছে বলে তাদের পারিবারিক সূত্রে জানতে পেরেছি। তবে এ বিষয়ে সোমবার দুপুর পর্যন্ত থানায় কোন মামলা হয়নি।