ভারতে পাচার হবার ৫ বছর পর দেশে ফিরল ২৪ কিশোর–কিশোরী


❏ মঙ্গলবার, নভেম্বর ২২, ২০২২ আলোচিত বাংলাদেশ, খুলনা

যশোর প্রতিনিধি: ভালো কাজের প্রলোভনে ভারতে পাচার হওয়া ২৪ জন বাংলাদেশি কিশোর–কিশোরী ৫ বছর পর দেশে ফিরেছে।

স্বদেশ প্রত্যাবাসন আইনে বেনাপোলে হস্তান্তর করেছে ভারতের কলকাতায় নিযুক্ত বাংলাদেশ উপ হাইকমিশন। আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ভারতের পেট্রাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশ, আইনি প্রক্রিয়া শেষে তাদের বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশের হাতে তুলে দেয়।

ফেরত আসা কিশোর–কিশোরীদের বাড়ি যশোর, সাতক্ষীরা, কক্সবাজার, নওগাঁ, চট্টগ্রাম, যশোর, ঢাকা, বাগেরহাট ও বরিশাল জেলার বিভিন্ন এলাকায়। তাদের আইনি সহায়তা দিতে ১৩ জনকে জাস্টিস অ্যান্ড কেয়ার, ৬ জনকে বাংলাদেশ মহিলা আইনজীবী সমিতি ও ৫ জনকে রাইটস যশোর নামে তিনটি বেসরকারি সংস্থা (এনজিও) গ্রহণ করেছে।

জাস্টিস অ্যান্ড কেয়ারের সিনিয়র প্রোগ্রাম অফিসার এবিএম মুহিত হোসেন বলেন, ‘সংসারে অভাব অনটনের কারণে ভালো কাজের প্রলোভনে দেশের বিভিন্ন সীমান্ত পথে দালালের মাধ্যমে তারা ভারতে যায়।

এ সময় অবৈধ অনুপ্রবেশের অভিযোগে ভারতীয় পুলিশ তাদের আটক করে আদালতে পাঠায়। অপ্রাপ্ত বয়স হওয়ায় এ সময় আইনি সহায়তা দিতে ভারতীয় মানবাধিকার সংস্থা লিলুয়া, ধ্রুব আশ্রম ও সুকন্যা হোম তাদের আদালত থেকে ছাড়িয়ে নিজের শেল্টার হোমে নেয়। পরে দুই দেশের সরকারের সহযোগিতায়, স্বদেশ প্রত্যাবাসন আইনে তারা দেশে ফেরার সুযোগ পায়।’

মুহিত হোসেন আরও বলেন, ‘ফেরত আসা বাংলাদেশিরা যদি পাচারকারীদের শনাক্ত করে আইনি সহায়তা চায়, তাদের দেওয়া হবে।’

কলকাতায় নিযুক্ত বাংলাদেশ উপহাইকমিশনের কাউন্সেলর (কনস্যুলার) এএসএম আলমাস হোসেন জানান, অভিভাবকদের আরও সচেতন হতে হবে। যাতে এ সব অপ্রাপ্ত বয়স্ক ছেলে–মেয়েরা ঘর থেকে বিপথগামী না হয়।’