এইমাত্র
  • বেনজীরের রিসোর্টের আয় যাবে সরকারি কোষাগারে
  • শিমুল-তানভীর-শিলাস্তির পর দায় স্বীকার বাবুর
  • ঝাল বেশি হওয়ায় কোরিয়ান নুডুলস বিক্রি বন্ধ করলো ডেনমার্ক
  • ফেসবুকে প্রধানমন্ত্রীর নামে বিজ্ঞাপন দিয়ে প্রতারণার ফাঁদ
  • মাহমুদউল্লাহর অবসর নিয়ে যা বললেন সাকিব
  • তানজিদ তামিমের বুদ্ধির প্রশংসায় আইসিসি
  • যেকোনো সময় সরকারের পতন ঘটতে পারে: দুদু
  • সড়কে যানজটের কথা অস্বীকার করলেন ওবায়দুল কাদের
  • নীরবে চলে গেলেন সোনালি দিনের চিত্রনায়িকা সুনেত্রা
  • বেতন-ভাতার দাবিতে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ
  • আজ শনিবার, ১ আষাঢ়, ১৪৩১ | ১৫ জুন, ২০২৪
    দেশজুড়ে

    সিলেটে সাড়ে ৪ মাসে কৈলাসটিলা-৮ কূপে গ্যাসের সন্ধান

    আবুল হোসেন, স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, সিলেট প্রকাশ: ২৫ মে ২০২৪, ১০:০৩ এএম
    আবুল হোসেন, স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, সিলেট প্রকাশ: ২৫ মে ২০২৪, ১০:০৩ এএম

    সিলেটে সাড়ে ৪ মাসে কৈলাসটিলা-৮ কূপে গ্যাসের সন্ধান

    আবুল হোসেন, স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, সিলেট প্রকাশ: ২৫ মে ২০২৪, ১০:০৩ এএম

    সিলেটের কৈলাশটিলা গ্যাসফিল্ডের নতুন একটি অনুসন্ধান কূপে গ্যাসের সন্ধান মিলেছে। কর্মকর্তাদের মতে গ্যাসের প্রেশার ঠিক থাকলে এই কূপ থেকে প্রতিদিন ১৮ থেকে ২১ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস জাতীয় গ্রিডে যুক্ত হবে। খননকাজ শুরুর সাড়ে ৪ মাসের মাথায় শুক্রবার (২৪ মে) সকাল থেকে ফ্লো শুরু হয়েছে। আগামী দুদিন এই পরীক্ষা চলমান থাকবে।

    কৈলাশটিলা ৮ নম্বর কূপ থেকে গ্যাসের সাথে উপজাত হিসেবে কনডেনসেটও মিলবে, তবে প্রতি ঘনফুট গ্যাসের সাথে কি পরিমাণ কনডেনসেট মিলবে পরীক্ষা নিরীক্ষার পরই তা জানা যাবে।

    সারাদেশে গ্যাস উৎপাদন বাড়াতে নতুন যে সকল প্রকল্প হাতে নেয়া হয় তার একটি এই কৈলাশটিলা ৮ নম্বর কূপ। এ কূপের খনন কাজ শুরু হয় চলতি বছরের ১১ জানুয়ারি। সাড়ে ৪ মাসে সফলভাবে খনন কাজ শেষে চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের জন্য গ্যাসের প্রেশারসহ অন্য পরীক্ষা-নিরীক্ষা শুরু হয়েছে। শীঘ্রই আনুষ্ঠানিকভাবে গ্যাসের মজুদের পরিমাণ জানাবেন সংশ্লিষ্টরা।

    গত বছরের ২২ নভেম্বর সিলেট গ্যাস ফিল্ডস লিমিটেডের আওতাধীন গোলাপঞ্জের কৈলাশটিলা গ্যাসক্ষেত্রের ৭ নম্বর পুরনো কূপ ওয়ার্কওভার করে ৫৩ বিলিয়ন ঘনফুট গ্যাসের সন্ধান মিলে। ওই দিন থেকে প্রতিদিন ৭০ লাখ ঘনফুট গ্যাস জাতীয় গ্রিডে যুক্ত হচ্ছে।

    এর আগে গত ১৪ নভেম্বর বিয়ানীবাজার-১ কূপ ওয়ার্কওভার করে দৈনিক ৮/৯ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস জাতীয় গ্রিডে সরবরাহ শুরু হয়। গ্যাসের সাথে এই কৈলাশটিলা কূপ থেকে উপজাত হিসেবে দৈনিক ৭০ ব্যারেল কনডেনসেট পাওয়া যাবে। এ কূপের ওয়ার্কওভারে ব্যয় হচ্ছে প্রায় ৭১ কোটি ৮৫ লাখ টাকা, যা এসজিএফলের নিজস্ব অর্থায়নে করা হচ্ছে। গত বছরের ২৭ জুলাই সিলেট গ্যাসফিল্ড লিমিটেডের আওতাধীন এই কূপ পুনঃ খনন শুরু হয়। ১৪ নভেম্বর নিচের স্তরে গ্যাসের সন্ধান পাওয়া যায়।

    জ্বালানি সংকট নিরসনে গ্যাস উৎপাদন বাড়াতে দেশের ৪৬টি কূপ অনুসন্ধান, খনন ও পুনঃ খননের পরিকল্পনা নিয়েছে সরকার। ২০২৫ সালের মধ্যে এসব খননকাজ শেষ হওয়ার কথা রয়েছে।

    সম্পর্কিত:

    সম্পর্কিত তথ্য খুঁজে পাওয়া যায়নি

    সর্বশেষ প্রকাশিত

    Loading…