এইমাত্র
  • আজ দে‌শের স‌র্বোচ্চ তাপমাত্রা চুয়াডাঙ্গায়
  • বাংলাদেশি পর্যটকদের ৩ দিন ভারত ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা
  • চার বিভাগে হিট অ্যালার্ট জারি আবহাওয়া অফিসের
  • খারকিভে চলছে ‘কঠিন লড়াই’: জেলেনস্কি
  • সবুজবাগে নির্মাণাধীন ভবনের মাচা ভেঙে নিহত ৩ শ্রমিক
  • আবারো চুয়াডাঙ্গায় তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি ছুঁই ছুঁই
  • চুয়াডাঙ্গায় সড়ক দুর্ঘটনায় বাইসাইকেল আরোহী নিহত
  • সিরাজগঞ্জে কভার্ডভ্যানে মিলল ২১৬ কেজি গাঁজা, গ্রেপ্তার ২
  • টাঙ্গাইলের ১৬ সরকারি অফিসে ওড়ে না জাতীয় পতাকা
  • ১০ হাজারের বেশি বাংলাদেশিকে ফেরত পাঠাবে যুক্তরাজ্য
  • আজ শনিবার, ৪ জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ | ১৮ মে, ২০২৪

    হবিগঞ্জে ট্রেনের নিচে কাটা পড়ে প্রাণ হারালেন মাহমুদ

    সময়েরকণ্ঠস্বর প্রকাশ: ২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ০৩:১১ পিএম
    সময়েরকণ্ঠস্বর প্রকাশ: ২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ০৩:১১ পিএম

    হবিগঞ্জে ট্রেনের নিচে কাটা পড়ে প্রাণ হারালেন মাহমুদ

    সময়েরকণ্ঠস্বর প্রকাশ: ২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ০৩:১১ পিএম

    মঈনুল হাসান রতন, হবিগঞ্জ প্রতিনিধি: কুমিল্লা থেকে সন্তানদের জন্য কেনা নতুন কাপড় নিয়ে বাড়ি ফেরা হলো না হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলার বাসিন্দা রাজমিস্ত্রি মাহমুদ মিয়ার (৪০)। ট্রেনের নিচে কাটা পড়ে প্রাণ হারিয়েছেন তিনি।

    ময়নাতদন্ত শেষে বৃহস্পতিবার (২ ফেব্রুয়ারি) সকালে তার মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেছে পুলিশ।

    জানা যায়, অভাব-অনটনের সংসারে জীবিকার তাগিদে বাড়িতে স্ত্রী ও শিশুসন্তান রেখে কুমিল্লায় রাজমিস্ত্রির কাজ করতেন মাহমুদ। বাড়ি যাবেন বলে বাচ্চাদের জন্য নতুন কাপড় কেনেন তিনি। এরপর বুধবার (১ ফেব্রুয়ারি) কুমিল্লা থেকে পাহাড়িকা ট্রেনে চড়ে বাড়ির উদ্দেশে রওয়ানা হন।

    বেলা ২টার দিকে ট্রেনটি শায়েস্তাগঞ্জ রেলওয়ে জংশনে থামলে মাহমুদ নামতে গিয়ে হোঁচট খেয়ে ট্রেনের নিচে পড়ে যান। ট্রেন ছাড়লে তার পা কাটকা পড়ে। তাকে প্রথমে হবিগঞ্জ সদর হাসপাতালও পরে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাতে তিনি মারা যান।

    শায়েস্তাগঞ্জ রেলওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ বাদশা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, অসাবধানতাবশত মাহমুদ মিয়া ট্রেনের নিচে পড়ে যান। সকালে ময়নাতদন্ত শেষে তার মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

    ট্যাগ :

    সম্পর্কিত:

    সম্পর্কিত তথ্য খুঁজে পাওয়া যায়নি

    সর্বশেষ প্রকাশিত

    Loading…