এইমাত্র
  • আজ দে‌শের স‌র্বোচ্চ তাপমাত্রা চুয়াডাঙ্গায়
  • বাংলাদেশি পর্যটকদের ৩ দিন ভারত ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা
  • চার বিভাগে হিট অ্যালার্ট জারি আবহাওয়া অফিসের
  • খারকিভে চলছে ‘কঠিন লড়াই’: জেলেনস্কি
  • সবুজবাগে নির্মাণাধীন ভবনের মাচা ভেঙে নিহত ৩ শ্রমিক
  • আবারো চুয়াডাঙ্গায় তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি ছুঁই ছুঁই
  • চুয়াডাঙ্গায় সড়ক দুর্ঘটনায় বাইসাইকেল আরোহী নিহত
  • সিরাজগঞ্জে কভার্ডভ্যানে মিলল ২১৬ কেজি গাঁজা, গ্রেপ্তার ২
  • টাঙ্গাইলের ১৬ সরকারি অফিসে ওড়ে না জাতীয় পতাকা
  • ১০ হাজারের বেশি বাংলাদেশিকে ফেরত পাঠাবে যুক্তরাজ্য
  • আজ শনিবার, ৩ জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ | ১৮ মে, ২০২৪
    রাজনীতি

    পুলিশকে মামলা প্রত্যাহার করতে সাতদিনের আল্টিমেটাম মিনুর

    ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট প্রকাশ: ২১ মে ২০২৩, ০৫:৩৭ পিএম
    ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট প্রকাশ: ২১ মে ২০২৩, ০৫:৩৭ পিএম

    পুলিশকে মামলা প্রত্যাহার করতে সাতদিনের আল্টিমেটাম মিনুর

    ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট প্রকাশ: ২১ মে ২০২৩, ০৫:৩৭ পিএম

    রাজশাহীতে সাজানো মামলা দিয়ে বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীদের হয়রানি ও গ্রেপ্তার বন্ধ না হলে স্থানীয়ভাবে আন্দোলনের ঘোষণা দিয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনু।

    রবিবার (২১ মে) দুপুরে নগরীর মালোপাড়াস্থ দলীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে পুলিশের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলে সর্বশেষ মামলা প্রত্যাহারের জন্য সাতদিনের আল্টিমেটাম দেওয়া হয়।

    সংবাদ সম্মেলনে দাবি করা হয়, গত শুক্রবার (১৯ মে) বিকেলে পুঠিয়া উপজেলার শিবপুরে জেলা ও মহানগর বিএনপি আয়োজিত জনসমাবেশে যোগদান শেষে বাড়ি ফিরছিলেন দলীয় নেতাকর্মীরা। নগরীর মালোপাড়া এলাকায় বাস থেকে নামার সঙ্গে সঙ্গে রাজশাহী কলেজ ছাত্রদলের আহ্বায়ক খালিদ বিন ওয়ালিদসহ ছাত্রদল ও যুবদলের ১১ নেতাকর্মীকে পুলিশ আটক করে থানায় নিয়ে যায়। রাতে তাদের বিরুদ্ধে ককটেল বিস্ফোরণ, পুলিশের ওপর হামলা ও সরকারি কাজে বাধাদানের গায়েবি মামলা করে পুলিশ। পরদিন সেই মামলায় তাদের গ্রেপ্তার দেখিয়ে কারাগারে পাঠানো হয়।

    সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, একই মামলায় বিএনপির কেন্দ্রীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ শাহীন শওকতসহ বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের বেশ কিছু নেতাকে পলাতক আসামি দেখানো হয়েছে। যা খুবই দুঃখজনক।

    সংবাদ সম্মেলন থেকে আগামি সাতদিনের মধ্যে মামলা প্রত্যাহার করে গ্রেপ্তার নেতাকর্মীদের মুক্তির দাবি জানানো হয়। অন্যথায় রাজশাহী থেকে বৃহত্তর আন্দোলন কর্মসূচি ঘোষণার হুমকি দেওয়া হয়।

    সংবাদ সম্মেলনে দাবি করা হয়, আগামি ২১ জুন অনুষ্ঠেয় রাজশাহী সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিএনপি অংশ না নিলেও পুলিশ সরকার দলীয় প্রার্থীকে বিজয়ী করতে বিএনপি নেতাকর্মীদের নামে সাজানো মামলা দেওয়া শুরু করেছে। এ সময় যারা দলীয় সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে কাউন্সিলর পদে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে চাইছেন তাদের প্রতি কঠোর হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন মিনু।

    তিনি বলেন, যারা দলীয় সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে নির্বাচন করবেন তাদের বিরুদ্ধে আজীবন বহিষ্কারের মতো কঠোর সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে। কেবল তাই নয়, তাদের বেঈমান হিসেবে চিহ্নিত করা হবে বলেও জানানো হয় সংবাদ সম্মেলনে।

    সংবাদ সম্মেলনে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনু ছাড়াও বিএনপির জেলা ও মহানগর নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

    সম্পর্কিত:

    সম্পর্কিত তথ্য খুঁজে পাওয়া যায়নি

    সর্বশেষ প্রকাশিত

    Loading…