এইমাত্র
  • ৭৬ বছরে মামুনুর রশীদ, যে কারণে ‘১৯তম’ জন্মদিন আজ
  • আধুনিকতায় বদলে যাচ্ছে বেনাপোল স্থলবন্দরের চেহারা
  • ফখরুলের মুখে মানুষের জানমালের নিরাপত্তা ‘ভূতের মুখে রাম নাম’
  • ত্রিশালে স্কুল-মাদ্রাসা কবিতা আবৃত্তি প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত
  • ৪ ঘণ্টা পর ঢাকার সঙ্গে উত্তরাঞ্চলের ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক
  • টাঙ্গাইলে বিকল হওয়া কমিউটার ট্রেন উদ্ধার
  • কালীগঞ্জে কাভার্ডভ্যানের ধাক্কায় প্রাণ গেল কলেজছাত্রের
  • অবশেষে বাড়লো বিদ্যুতের দাম
  • ইতিহাসে ৩০ ফেব্রুয়ারি যেভাবে একবারই এসেছিল
  • নামাজে যাওয়ার পথে গাড়ির ধাক্কায় প্রাণ গেল শিক্ষকের
  • আজ বৃহস্পতিবার, ১৬ ফাল্গুন, ১৪৩০ | ২৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪
    রাজধানী

    আ. লীগ অফিসে আগুন দেয়ার জন্য ৭ হাজার টাকায় চুক্তি করেন ছাত্রদল নেতা

    সময়ের কণ্ঠস্বর, ঢাকা প্রকাশ: ৮ ডিসেম্বর ২০২৩, ০১:৪৫ এএম
    সময়ের কণ্ঠস্বর, ঢাকা প্রকাশ: ৮ ডিসেম্বর ২০২৩, ০১:৪৫ এএম

    আ. লীগ অফিসে আগুন দেয়ার জন্য ৭ হাজার টাকায় চুক্তি করেন ছাত্রদল নেতা

    সময়ের কণ্ঠস্বর, ঢাকা প্রকাশ: ৮ ডিসেম্বর ২০২৩, ০১:৪৫ এএম

    রাজধানীর মোহাম্মদপুরের ঢাকা উদ্যান আওয়ামী লীগ অফিসে আগুন দেওয়ার সময় জাহিদ হাসান শান্ত (২২) ও তার তথ্যে কুমিল্লা থেকে রফিকুল ইসলাম রফিক (২৭) নামে ছাত্রদলের আরেক নেতাকে আটক করেছে পুলিশ। বুধবার (৬ ডিসেম্বর) রাতে ও বৃহস্পতিবার (৭ডিসেম্বর) ভোররাতে তাদের দুজনকে আটক করে মোহাম্মদপুর থানা পুলিশ। আটক রফিকুল ইসলাম রফিকের বাড়ি কুমিল্লা জেলার হোমনা থানার কলাকান্দি গ্রামে এবং জাহিদ হাসান শান্তর বাড়ি হবিগঞ্জ জেলার সদর থানার তারাপাল্লা এলাকায়। মোহাম্মদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মোহাম্মদ মাহফুজুল হক ভূঞা বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন তিনি বলেন, ৬ তারিখ রাতে মোহাম্মদপুর থানার ঢাকা উদ্যান আওয়ামী লীগ অফিসে আগুন দেওয়ার প্রস্তুতির সময় হাজারীবাগ থানা ছাত্রদলের সদস্য জাহিদ হাসান শান্তকে আটক করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদে শান্তকে জানায় ৭ হাজার টাকার বিনিময়ে সে এই কাজ করার প্রস্তুতি নিচ্ছিল এবং আগুন দেওয়ার জন্য হাজারীবাগ থানা ছাত্রদলের সদস্য সচিব রফিকুল ইসলাম রফিক তাকে ৭ হাজার টাকায় কন্টাক্ট করে। কাজটি করার জন্য তাকে অগ্রিম ২ হাজার টাকা দেওয়া হয় এবং কাজ শেষ হলে আরো ৫ হাজার টাকা দেওয়ার কথা বলে রফিকুল ইসলাম রফিক। তিনি আরো জানায়, তার দেওয়া তথ্য মতে মূল পরিকল্পনাকারী রফিকুল ইসলাম রফিককে কুমিল্লা জেলার হোমনা থেকে ভোররাতে আটক করে মোহাম্মদপুর থানা পুলিশ।

    জিজ্ঞাসাবাদে রফিকুল ইসলাম রফিক বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, শান্তর আটকের বিষয়টি আমি জানতে পেরে আমার গ্রামের বাড়ি কুমিল্লা জেলার হোমনায় চলে যাই। সেখান থেকে পুলিশ আমাকে আটক করে। ওসি আরো বলেন, এ ঘটনায় মোহাম্মদপুর থানায় তাদের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। আগামীকাল তাদের দুজনকে আদালতে হাজির করা হবে। তাদের দুজনের বিরুদ্ধেই নাশকতার মামলা রয়েছে। ।

    সম্পর্কিত:

    সম্পর্কিত তথ্য খুঁজে পাওয়া যায়নি

    সর্বশেষ প্রকাশিত

    Loading…